ব্যাংকক দর্শনীয় জিনিসগুলি

ব্যাংককে আবিষ্কার করার মতো আপনি প্রথম দর্শনে যা দেখবেন তার চাইতেও অনেক বেশী কিছু রয়েছে। ব্যাংককের প্রধান আকর্ষণসমূহ ছাড়াও কিছু স্থান রয়েছে যেগুলি কম পরিচিত। তার মধ্যে একটা হলো ওয়াত রাচাবোফিত। এখানে দর্শনযোগ্য অলঙ্কৃত ফলকসমৃদ্ধ প্রচুর স্মৃতিসৌধ রয়েছে। আরও কিছু জায়গা দেখতে প্রায়ই বাদ পড়ে যেমন ব্যাংককের গ্রান্ড প্যালেস সেইসাথে রয়েছে জাতীয় যাদুঘর ও উইমানমেক থ্রোন হল এবং জিম থম্পসন’স হাউজ।

আপনি ব্যাংককের সংস্কৃতি ও সমৃদ্ধ ইতিহাসের গভীরে প্রবেশ করতে পারবেন যদি ঐতিহাসিক চাও ফ্রায়া নদীকে ভালভাবে অনুসন্ধান করেন। অনেক কিছু দেখা ও জানার আছে ব্যাংককে কারণ এখনও সেখানে পুরনো ঐতিহ্য বর্তমান যা প্রভাবান্বিত করে সংস্কৃতিকে সেইসাথে আধুনিক সভ্যতাকে। এখানকার জনগণ তাদের অতীতকে ভালবাসে সেইসাথে বর্তমানের প্রতিও তারা উতসাহী যার ফলে ব্যাংকক একটা সুন্দর শহর হিসেবে গড়ে উঠেছে।

শহরের মানুষদের কাছে একটা মজার বিষয় হলো তাদের খাদ্য-খাবার গ্রহণ। তারা খুব মশলদার ও অভিজাত খাবার গ্রহণ করে। জাতীয়ভাবে যে খাদ্যগুলো বিশিষ্ট তার মধ্যে মাছ, কাঁকড়া, গলদা চিংড়ি ও বাগদা চিংড়ি রয়েছে। উপরোক্ত খাদ্য গুলি ছাড়াও অন্যান্য খাবারও রয়েছে। ব্যাংককের খাবার দাবার সত্যিই একটা মজার ব্যাপার। যত্রতত্র জাকজমকপূর্ণ, বসে পড়ার মতো রেস্তোরাঁ রয়েছে খাদ্য খাবারের বিশেষ জায়গাগুলির পথে। যেকোন রুচির লোকজনের জন্য এখানকার খাবার চমকপ্রদ মনে হবে।

থাইবাসীগন তাদের জীবনকে আমোদপ্রমোদের মাধ্যমে উপভোগ করে সেইসাথে রয়েছে তাদের রাত্রিকালিন জীবনের আনন্দ। এখানে প্রত্যেকের জন্যই আনন্দের ব্যবস্থা রয়েছে। আপনি ক্লাসিক্যাল থাই নাচ দেখতে পারেন আবার লাউঞ্জে বসে ককটেল পান করতে পারেন। যারা ডিসকো পছন্দ করেন তাদের ডিসকোর ব্যবস্থা রয়েছে এখানে।

থাইল্যান্ডে সবচেয়ে জনপ্রিয় খেলা যা দর্শকরা উপভোগ করে থাকেন তা হলো থাই কিকবক্সিং (মুয়েই থাই)। থাই কিকবক্সিং এর জন্য প্রতিযোগীদের গ্লাভযুক্ত পা, হাঁটু, কনুই ও মুষ্ঠি ব্যবহার করতে হয়। স্তাহের অধিকাংশ রাতেই আপনি কোন না কোন স্টেডিয়ামে এইসব খেলা উপভোগ করতে পারবেন। এখানে আসলে আপনি অবশ্যই এই খেলা মিস করবেন না। শুধু খেলা দেখাই আনন্দের নয় রিং এর চারপাশের হৈচৈ আর দৃশ্যও দেখার মতো।

আপনি যদি উচ্চমার্গের কোন কিছু থাইল্যান্ডে উপভোগ করতে চান তবে থাই কালচারাল সেন্টারে চলে যেতে পারেন যেটা সম্প্রতি চালু হয়েছে। আপনি এখানে নাচ, গান এবং নাটক উপভোগ করতে পারবেন। এছাড়াও আপনি হাই রেটেড কোন হোটেলে এসব উপভোগ কতে পারবেন।

Social Media